• সোমবার, ২৩ জুলাই ২০১৮, ৮ শ্রাবণ ১৪২৫
  • ||

বিদ্যুৎ সংযোগ দেয়ার নামে জমি রেজিস্ট্রি করে নেয়ার পায়তারা

প্রকাশ:  ১১ জুলাই ২০১৮, ১৯:০২
নেত্রকোণা প্রতিনিধি
প্রিন্ট

স্বামীহারা এক অসহায় নারীর ঘরে বিদ্যুৎ সংযোগ দেয়ার নাম করে স্থানীয় একটি প্রতারক চক্র জমি রেজিস্ট্রি করে নেয়ার পায়তারা করে ব্যর্থ হওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় দূর্গাপুর সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে ৪১৭/৪২০/৩২৭/৫০৬/৩৪ দণ্ডবিধি ধারায় মামলা দায়ের করেছেন উপজেলার বিশ্বনাথপুর গ্রামের মৃত আব্দুল গফুরের স্ত্রী ভুক্তভোগী নারী শহরবানু।

দূর্গাপুর আদালত সূত্রে জানা গেছে, গত ২৮ জুন বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার উত্তর বিশ্বনাথপুর গ্রামে শহরবানুর নিজ বাড়ী এবং পরবর্তীতে দুর্গাপুর সাব-রেজিস্ট্রি অফিস প্রাঙ্গনে প্রতারক চক্রের এই পায়তারার প্রকাশ ঘটে। এ ঘটনার পর থেকে এলাকায় চাঞ্চল্যকর অবস্থা সৃষ্টি হয়েছে।

মামলার সংক্ষিপ্ত বিবরণে জানা যায়, উত্তর বিশ্বনাথপুর গ্রামের মৃত আব্দুল গফুর এর স্ত্রী শহরবানু’র ঘরে বিদ্যুৎ সংযোগ দেয়ার ব্যবস্থা করে দিবেন বলে ঐ গ্রামের আবুল কাসেমের ছেলে আঃ মজিদ মোল্লা,ও আলফাজ উদ্দিনের ছেলে আব্দুস সাত্তার মিথ্যা প্রলোভন দেখিয়ে জমি রেজিস্ট্রি করে নেয়ার চেষ্টা চালায়।

সংযোগ দেয়ার কথা বলে শহরবানুর কাছ থেকে পাসপোর্ট সাইজ রঙ্গীন ছবি ও জাতীয় পরিচয়পত্রের মূল কপি প্রতারণা করে নিয়ে যায়।পরবর্তীতে প্রতারকরা দুর্গাপুর সাব-রেজিস্ট্রি অফিসের দলিল লিখক মোঃ সারোয়ার হোসেন নামে এক দলিল লিখকের দ্বারা দলিল লিখে প্রস্তুত করেন। এতে সকল ধরনের সহযোগীতা করেন সাব-রেজিস্ট্রি অফিসের অফিস সহকারী মোঃ সিরাজুল হক ও নৈশ প্রহরী সঞ্জিবন কৃষ্ণ রায়সহ বেশ কজনকে অভিযুক্ত করেই আদালতে মামলাটি দায়ের করেন। সেইসাথে মামলায় তিনি নিরাপত্তা হীনতায় ভুগছেন বলেও উল্লেখ করেন।

ভুক্তভোগী নারী জানান, সিরাজুল হক এবং সঞ্জিবন কৃষ্ণ রায় লিখিত দলিল নিয়া তার নিজ বাড়িতে গিয়ে স্বাক্ষর নেয়ার জোর চেষ্টা চালান। স্বাক্ষর না দেয়ায় কিভাবে স্বাক্ষর নিতে হয় তা উনারা জানেন বলে হুমকী দিয়ে আসেন বলে অভিযোগ করেন তিনি। এমন ধরনের প্রতারাণার অভিযোগ এনেই শহরবানু বাদী হয়ে সুষ্ট বিচার দাবী করে প্রতারক মজিদ মোল্লা প্রধান এবং ও সহযোগীতাকারী সিরাজুল হক সঞ্জিবনসহ ৫ জনের নাম ঠিকানা উল্লেখ পূর্বক গত সোমবার দুর্গাপুর বিজ্ঞ সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে ৪১৭/৪২০/৩২৭/৫০৬/৩৪ দণ্ডবিধি ধারায় মামলা দায়ের করেন।

এদিকে মামলা দায়ের করার পর থেকেই নানা ধরণের ভয়ভীতি ও হুমকী প্রদর্শন করে আসছে প্রতারক চক্রের সদস্যরা মুঠোফোনে জানান বাদী শহরবানু।

ওএফ

জমি দখল