• বুধবার, ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ৮ ১৪২৫
  • ||
  • আর্কাইভ

কুয়া থেকে স্কুল ছাত্রীর মরদেহ উদ্ধার

প্রকাশ:  ১৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ১৬:৩৩
গাইবান্ধা প্রতিনিধি
প্রিন্ট

আঁখি আক্তার নামে ৫ম শ্রেণীর এক ছাত্রির মরদেহ গাইবান্ধার বোয়ালী ইউনিযনের রাধাকৃষ্ণপুরের তিনগাছেরতল এলাকার কেজিবি নামে একটি ইটভাটার কাঁচা ল্যাট্রিনের কুয়া থেকে উদ্ধার করা হয়েছে। 

গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যার আগে এলাকাবাসী তার লাশ কুয়ার ভেতরে দেখতে পেয়ে পুলিশ কে খবর দেয়। তাকে ধর্ষনের পর খুন করে সেখানে ফেলে রাখা হয় বলে পরিবার সূত্র ধারণা করছে। বাড়ি থেকে সে ৭দিন আগে নিখোঁজ হয়। রাতে পুলিশ লাশ উদ্ধার করার পর তার পরিচয় জানা যায়। অভিযোগের ভিত্তিতে বুধবার দুপুরে তার কথিত প্রেমিক তোফায়েল আহম্মেদ তিতুকে আটক করেছে থানা পুলিশ। 

নিহত আঁখি আক্তার গাইবান্ধা সদরের গোদারহাট গ্রামে তার নানা আবদুল আজিজের বাড়িতে থেকে গোদারহাট সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে লেখাপড়া করতো। তাদের বাড়ি পাশের ঘাগোয়া ইউনিয়নের মাদ্রাসাপাড়া গ্রামে।  তাকে প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে নানা ভাবে উত্ত্যক্ত করতো ঘাগোয়া এম বি উচ্চ বিদ্যালয়ে দশম শ্রেণির ছাত্র বখাটে তোফায়েল আহমেদ তিতু। সে নিখোঁজ হলে আত্মীয় স্বজনের বাড়িতে খোঁজ করে ব্যর্থ হলে থানায় অভিযোগ দিতে এসে মরদেহের খবর পান আঁখির বাবা মো. আক্কাস আলী। এ খুনের ঘটনায় তিতুকেই দায়ী করছেন।
 
গাইবান্ধা সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) মো. আরশেদুল হক জানান, এ ব্যাপারে নিহতের বাবা বাদী হয়ে তিনজনকে আসামী করে থানায় মামলা করেছেন। পুলিশ পুরো ব্যাপারটি খতিয়ে দেখছে। তবে ময়না তদন্তের রিপোর্ট পেলে বিস্তারিত বলা যাবে।