• রবিবার, ১৮ নভেম্বর ২০১৮, ৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৫
  • ||

‘অভিনয়ের বাইরে কোনও অপশন ছিল না’

প্রকাশ:  ০৮ নভেম্বর ২০১৮, ২১:৪৩ | আপডেট : ০৯ নভেম্বর ২০১৮, ১৫:০৫
হাসনাত কাদীর
প্রিন্ট

এসময়ের জনপ্রিয় অভিনেতা শ্যামল মাওলা। ছেলেবেলা থেকেই অভিনয়ের সাথে গাঁটছড়া বাঁধা এই অভিনেতা সময়ের সাথে সাথে হয়ে উঠেছেন আরও পরিপক্ক ও ধারালো। ৮ নভেম্বর তাঁর শুভ জন্মদিন। জন্মদিনে শ্যামল মাওলাকে শুভেচ্ছা জানিয়ে ‘পূর্বপশ্চিমবিডি.নিউজ’-এর পক্ষ থেকে কথা বলেছেন হাসনাত কাদীর। সাক্ষাৎকারে উঠে এসেছে শ্যামল মাওলার অভিনয়ভাবনা, প্রেম ও জীবন সম্পর্কে তাঁর দৃষ্টিভঙ্গি।

পূর্বপশ্চিম: কেমন আছেন আর কী নিয়ে ব্যস্ত আছেন?

শ্যামল মাওলা: আলহামদুলিল্লাহ্‌! আমি ভালো আছি। ব্যস্ততা বলতে শুধুই অভিনয়। আমি অভিনয়ে দিন শুরু করি, অভিনয়েই শেষ করি দিন।

পূর্বপশ্চিম: পেশা হিসাবে অভিনয়কে কেন বেছে নিয়েছিলেন?

শ্যামল মাওলা: বেছে নেইনি। বেছে নিতে হলে তো অপশন থাকতে হয়। আমার জন্য অভিনয়ের বাইরে কোন অপশন ছিলো না। কারণ, অভিনয় ছাড়া আর কিছু করার যোগ্যতা আমার নাই। সুতরাং, আমার কোন অপশন নেই বলেই অভিনয় করি। আর এতোদিন ধরে অভিনয়টা করে যেতে পারছি- কারণ, অভিনয়কে আমি ভালোবাসি।

পূর্বপশ্চিম: একজন ভালো অভিনেতা হওয়ার জন্য কী কী করণীয়?

শ্যামল মাওলা: আমি মনে করি অভিনয় একটা সাধনার বিষয়। এটি একদিনে শিখে ফেলার বিষয় না। আপনাকে চোখ-কান খোলা রাখতে হবে। জীবন-জগৎ আর মানুষ দেখতে হবে মনোযোগ দিয়ে। শুধু অব্জার্ভেশন করলেই হবে না। অনুভবও করতে হবে। আর সবচে’ গুরুত্বপূর্ণ বিষয়টা হলো, ভালো মানুষ হতে হবে।

পূর্বপশ্চিম: একজন অভিনেতা তাঁর অভিনয়ের মাধ্যমে সমাজের কোন কল্যাণ বা উপকারে এসে থাকেন বলে মনে করেন?

শ্যামল মাওলা: শিল্পী মাত্রই সমাজের প্রতি দায়বদ্ধতায় আবদ্ধ। একজন অভিনয়শিল্পীর গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব এবং ভূমিকা আছে সমাজের প্রতি। শিল্প কী করে? শিল্প মূলত মানুষের মনের ময়লাসমূহ পরিচ্ছন্ন করে। মানুষকে সচেতন করে। মূল্যবোধ এবং নৈতিকতা গড়তে অবদান রাখে। সুতরাং, আমি যখন অভিনয় করি তখন কিন্তু ‘পরিষ্কারক’ বা নিয়ামক হিসেবে আমার অভিনয়শক্তিকে ব্যবহার করে চলেছি। সুতরাং, অভিনয়ের মাধ্যমে একজন শিল্পী সমাজের কল্যাণে ভূমিকা রাখতে পারেন। তবে, সেক্ষেত্রে তাকে অবশ্যই সচেতন ও নৈতিক মূল্যবোধ সম্পন্ন মানুষ হতে হবে। কারণ, অভিনয় হচ্ছে প্রযুক্তির মতো। একে যেমন সমাজের উপকারে ব্যবহার করা যায়। তেমনি খারাপ অভিপ্রায়ে ব্যবহার করলে ক্ষতির কারণও হতে পারে এটি।

পূর্বপশ্চিম: অভিনয় জীবন আর বাস্তব জীবনকে কিভাবে আলাদা করেন?

শ্যামল মাওলা: তেমন কোন জটিল ব্যাপার না। অভিনয় হচ্ছে সাধনা। ধর্মপ্রাণ মানুষ যেমন উপাসনা থেকে বের হয়, আমিও তেমন অভিনয় থেকে বের হই। অভিনয়ের মঞ্চ, সেট বা প্লেস আমার কাছে উপাসনালয়ের মতো।

পূর্বপশ্চিম: ছোট পর্দায় দর্শক আপনাকে নিয়মিত পেলেও বড় পর্দায় পাচ্ছেন না। বড় পর্দায় নিয়মিত কবে পাওয়া যাবে আপনাকে?

শ্যামল মাওলা: অভিনেতা মাত্রই বড় পর্দায় অভিনয়ের ইচ্ছা পোষণ করে। আমিও এর ব্যতিক্রম নই। সামনে বছর থেকে বড় পর্দায় দর্শক আমাকে নিয়মিত পাবে। তবে এখনই এব্যাপারে বিস্তারিত বলতে চাচ্ছি না।

পূর্বপশ্চিম: অভিনয়ের বাইরে আপনার প্রেমের বিষয় কী?

শ্যামল মাওলা: অভিনয়ের বাইরে মিউজিক আমাকে আচ্ছন্ন করে। তবে তার থেকেও বেশি আচ্ছন্ন করে রাখে আমার ছেলে শ্রেয়ন।

পূর্বপশ্চিম: জন্মদিন নিয়ে পরিকল্পনা...।

শ্যামল মাওলা: সাধারণত জন্মদিন পালন নিয়ে আমার তেমন কোন পরিকল্পনা থাকে না। তবে বন্ধুবান্ধবকে সময় দেই। আর ছেলের সাথে সময় কাটাতে ভালোবাসি।

পূর্বপশ্চিম: জীবনের একটি দীর্ঘ পথ তো পাড়ি দিয়ে ফেললেন। যদি প্রশ্ন করি জীবন আসলে কী?

শ্যামল মাওলা: জীবন আমার কাছে সময় আর অভিজ্ঞতার সমষ্টি। সৃষ্টিকর্তার পক্ষ থেকে এ-এক অনিন্দ্য উপহার। একে কল্যাণকর ও আনন্দের সাথে যাপন করা উচিত।

পূর্বপশ্চিম: অনেক অনেক ধন্যবাদ। পূর্বপশ্চিমের পক্ষ থেকে আপনাকে আবারও জন্মদিনের শুভেচ্ছা।

শ্যামল মাওলা: আপনাকে এবং পূর্বপশ্চিমকেও ধন্যবাদ।

/ই.কা

শ্যামল মাওলা,সাক্ষাৎকার
apps