• বৃহস্পতিবার, ১৯ জুলাই ২০১৮, ৪ শ্রাবণ ১৪২৫
  • ||

‘মুসলিমকে বিয়ে করেছেন, কারিনার তো লজ্জা হওয়া উচিৎ’

প্রকাশ:  ১৬ এপ্রিল ২০১৮, ০১:২৯ | আপডেট : ১৬ এপ্রিল ২০১৮, ১০:৩৪
পূর্বপশ্চিম ডেস্ক
প্রিন্ট

হিন্দু হয়ে একজন মুসলিমকে বিয়ে! এবার তোপের মুখে কারিনা কাপূর খান। নবাব পতৌদির স্ত্রী’কে এইভাবে ট্রোলের শিকার হতে হয়েছে অনলাইনে। ধর্ষণের ঘটনার প্রতিবাদ করার পেরই রোষের মুখে পড়েন কারিনা। আর তাঁকে সমর্থন করে ওই মন্তব্যের তীব্র প্রতিবাদ করেছেন সহকর্মী সারা ভাস্বর।

সম্প্রতি উন্নাও এবং কাঠুয়ার ধর্ষণের ভয়ঙ্কর ঘটনা প্রকাশ্যে আসার পর অনেক সেলেব্রিটিই ধর্ষণের প্রতিবাদে এক বিশেষ ক্যাম্পেন করছেন। তাঁরা বুকের সামনে একটি সাদা কাগজে লেখা নিয়ে দাঁড়ানো ছবি পোস্ট করছেন সোশ্যাল মিডিয়ায়। সেখানে লেখা আছে ‘I am Hindustan, I am ashamed. কারিনা কাপূরও সেই প্রতিবাদে সামিল হন। তবে তাঁর কোনও সোশ্যাল মিডিয়া হ্যান্দলে না থাকায় তাঁর ছবিটি পোস্ট করেন সারা ভাস্বর।

সেই ছবিতেই আসে বিতর্কিত কমেন্ট। এক ব্যক্তি মন্তব্য করেছে, ‘হিন্দু হয়ে একজনম মুসলিমকে বিয়ে করেছেন। ওনার লজ্জা হওয়া উচিৎ। আবার এক সন্তানও হয়েছে। যার নাম রাখা হয়েছে এক নৃশংস মুসলমের নামে, তাইমুর।

রক্তের চাহিদা মেটাতে এগিয়ে এলেন মেডিক্যাল কলেজের জুনিয়র ডাক্তাররা ফের মালদার ভারত বাংলাদেশ সীমান্তে তোলাবাজদের হাতে আক্রান্ত হলেন এক লরি চালক রাজ্যের পঞ্চায়েত ভোটের তাজা ছবি এবং খবর তুলে আনতে আমরা আসছি ‘কোচবিহার-কাকদ্বীপ পঞ্চায়েত এক্সপ্রেস’ নিয়ে কলকাতায় ব্যবসায়ীর রহস্য মৃত্যুকে কেন্দ্রে করে চাঞ্চল্য এরপরই ক্ষুব্ধ স্বারা রিপ্লাইতে লেখেন, ‘আপনার তো বেঁচে থাকার জন্যই লজ্জা হওয়া উচিৎ। ভগবান আপনাকে মসওষ্ক দিয়েছে ঘৃণা করার জন্য আর মুখ দিয়েছে কদর্য কথা বলার জন্য। আপনি ভারত আর হিন্দুদের লজ্জা।’

কিছুদিনের মধ্যেই করিনা ও স্বারাকে ‘বীরে দি ওয়েডিং’ নামের একটি ছবিতে একসঙ্গে কাজ করতে দেখা যাবে। শশাঙ্ক ঘোষ পরিচালিত ওই ছবি মুক্তি পাবে আগামী ১ জুন। /কলকাতা ২৪/৭