• বুধবার, ২০ জুন ২০১৮, ৬ আষাঢ় ১৪২৫
  • ||
শিরোনাম

কম মূল্যে আধুনিক চিকিৎসা দেয় রিজেন্ট হাসপাতাল

প্রকাশ:  ০৭ এপ্রিল ২০১৮, ২১:৫৭ | আপডেট : ০৭ এপ্রিল ২০১৮, ২২:০৬
নিজস্ব প্রতিবেদক:
প্রিন্ট

দেশের বেসরকারী হাসপাতাল মানেই মোটা অংকের চিকিৎসা ফি, যেখানে গরীবের স্বাস্থ্য সেবা পাওয়ার সুযোগ নেই। এদিক থেকে ব্যতিক্রম রাজধানীর রিজেন্ট হাসপাতাল লিমিটেড। রাজধানীর মিরপুর ও উত্তরায় এ চিকিৎসা কেন্দ্রের দুটি শাখা বেসরকারী খাতে গরীবের হাসপাতাল হিসেবে পরিচিতি পেয়েছে।

রিজেন্ট হাসপতাল গড়ে উঠেছে দরিদ্র ও নিম্নবিত্ত রোগীদের সেবা দেয়ার লক্ষ্য নিয়ে। তবে চিকিৎসার মান এবং সুযোগ-সুবিধা যেমন আধুনিক, তেমন সর্বোচ্চ সেবা প্রদানের ক্ষেত্রেও তারা আপোষহীন। অবিশ্বাস্য হলেও সত্য যে চিকিৎসার ব্যয় অত্যন্ত কম। প্রকৃত দু:স্থ ও গরীব রোগীদের শুধু কমমূল্যে বা বিনামূল্যে চিকিৎসা নয়, প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রে ওষুধসহ অন্যান্য সহায়তাও প্রদান করা হয়।

রিজেন্ট গ্রুপের চেয়ারম্যান মোহম্মদ সাহেদ জানালেন, সকল সক্ষমতা ও আর্থিক সঙ্গতি থাকা সত্বেও নিজের মা’কে প্রায় চিকিৎসাহীন বা চিকিৎসার অবহেলায় মৃত্যুবরণ করতে দেখেছেন। মায়ের মৃত্যু তার মনে গভীর দাগ কাটে। একটা সময়ে ভাবনা আসে সকল সঙ্গতি থাকার পরেও চিকিৎসাহীন বা চিকিৎসার অবহেলায় মৃত্যুবরণ করতে হলে আর্থিকভাবে অস্বচ্ছল ও গরীব রোগীদের কি অবস্থা হয়। এই প্রেক্ষাপটেই তিনি গড়ে তোলেন রিজেন্ট হাসপাতাল।

তিনি বলেন, রিজেন্ট হাসপাতাল সম্পূর্ণ অলাভজনক ও অবাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠান। এখানে সেবাই মূখ্য। বাণিজ্য করার জন্য রিজেন্ট গ্রুপের একাধিক প্রতিষ্ঠান আছে। তার এ কথার সত্যতা পাওয়া যায় রিজেন্ট হাসপাতালে কর্মরত কয়েকজনের সাথে কথা বলে। রিজেন্ট হাসপাতালে কর্মরত নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা জানালেন, কমমূল্যে আর বিনামূল্যে চিকিৎসা প্রদান অব্যাহত রাখতে রিজেন্ট হাসপাতালের দুটি শাখায় গত আর্থিক বছরে ভর্তুকী দেয়া হয়েছে প্রায় অর্ধ কোটি টাকা। এই ভর্তুকী দিয়েছেন রিজেন্ট গ্রুপের চেয়ারম্যান, এবং এইসব তথ্য তিনি গোপনে রাখতেই স্বস্তিবোধ করেন।

২০১২ সালের ডিসেম্বরে কার্যক্রম শুরু করা রিজেন্ট হাসপাতালের উত্তরা ও মিরপুর উভয় শাখাতেই শয্যা সংখ্যা ৩৪টি করে। রিজেন্ট হাসপাতালে সাশ্রয়ী মূল্যে সর্বোচ্চ সেবার নিশ্চয়তা দিয়ে আসছে প্রতিষ্ঠার পর থেকেই। ২৪ ঘণ্টা বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের বিশ্বমানের চিকিৎসা সেবা ও তত্বাবধানের পাশাপাশি এ হাসপাতালে আইসিইউ, সিসিইউ, এনআইসিইউ, ডায়ালাইসিস, ইমারজেন্সি সেবা দেয়া হচ্ছে। এখানে লন্ডন, আয়ারল্যান্ড, যুক্তরাষ্ট্র ও সিঙ্গাপুরে অবস্থানরত বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের মাধ্যমে টেলিকনফারেন্সের মাধ্যমে সুপরামর্শ পাওয়ার ব্যবস্থাও আছে। 

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অনুমোদনপ্রাপ্ত একটি পূর্ণাঙ্গ হাসপাতাল হিসেবে রিজেন্ট হাসপাতালে রয়েছে  এক্সরে, প্যাথেলজিক্যাল ও ল্যাবরেটরি টেস্টের সর্বাধুনিক সুযোগ-সুবিধা। এখানে ইউরিন, সিটি স্ক্যান, এমআরআই অথবা আল্ট্রাসাউন্ড টেস্ট রিপোর্ট পাওয়া যায় এক ঘণ্টার মধ্যেই। পাশাপাশি রয়েছে ২৪ ঘন্টার নিজস্ব এম্বুলেন্স সার্ভিস।

বেসরকারী খাতের যে কোনো হাসপাতালে যেখানে ২০ হাজার টাকার কমে সিজারিয়ান ডেলিভারির সুযোগ নেই, সেখানে মাত্র সাড়ে সাত হাজার টাকা ব্যয়ে অভিজ্ঞ চিকিৎসকরা অস্ত্রপচারের মাধ্যমে সন্তান প্রসব করানো হয়ে থাকে। এ থেকেই অনুমান করা যায়, অন্যান্য বেসরকারী হাসপাতালের তুলনায় কয়েকগুণ সাশ্রয়ী খরচে এখানে চিকিৎসা সেবা দেওয়া হয়। সাশ্রয়ী খরচে চিকিৎসাই এ হাসপাতালের দুটি শাখাকে 'গরীবের হাসপাতাল' হিসেবে পরিচিতি এনে দিয়েছে।

রিজেন্ট হাসপাতাল লিমিটেডের ঠিকানা:
মিরপুর শাখা: ১৪/১১ মিতি প্লাজা, মিরপুর-১২, ঢাকা- ১২১৬।
উত্তরা শাখা: বাসা #৩৮ রোড #১৭ সেক্টর ১১ উত্তরা ঢাকা ১২৩০।