• শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ১১ ১৪২৫
  • ||
  • আর্কাইভ

মার্কিন কংগ্রেসে বাংলাদেশিদের মুখপাত্র হতে চান ড. নীনা

প্রকাশ:  ৩১ জানুয়ারি ২০১৮, ১০:৪৪
পূর্বপশ্চিম ডেস্ক
প্রিন্ট

যুক্তরাষ্ট্রের পেনসিলভেনিয়া অঙ্গরাজ্যের ফিলাডেলফিয়া সিটি এলাকা (কংগ্রেসনাল ডিস্ট্রিক্ট-পিএ-০১) থেকে ডেমক্র্যাটিক পার্টির মনোনয়ন লড়াইয়ে অবতীর্ণ ড. নীনা আহমেদ বলেছেন, ‘ভাগ্য গড়ার দেশ আমেরিকার নীতি-নির্ধারণে কোন বাংলাদেশি নেই। এই শূন্যতা পূরণ করতে চাই এবং কংগ্রেসে বাংলাদেশ তথা দক্ষিণ এশিয়ানদের মুখপাত্র হিসেবে কাজ করতে চাই।’

এই আসনের বর্তমান কংগ্রেসম্যান রোবার্ট ব্র্যাডি (Bob Brady) ১৯৯৮ সাল থেকে দায়িত্ব পালন করছেন। ডেমক্র্যাটিক পার্টির এই কংগ্রেসম্যানের বিরুদ্ধে দুর্নীতিসহ বিভিন্ন অভিযোগে তদন্ত শুরু করেছে এফবিআই। এর ফলে নভেম্বরের নির্বাচনে তার জয়ী হবার কোন সম্ভাবনা নেই বলে ড. নীনা মাঠে নেমেছেন। 

উল্লেখ্য, সাড়ে ৬ লাখ জনঅধ্যুষিত এই এলাকাটির সিংহভাগ ভোটারই ডেমক্র্যাট। অর্থাৎ দলীয় মনোনয়ন পেলেই জয় অনেকটা নিশ্চিত। আরও উল্লেখ্য, এই এলাকার মানুষের ৩৭.১ শ্বেতাঙ্গ। কৃষ্ণাঙ্গ ভোটারের হার ৪৯.৫%। এশিয়ান-৪.৯%। ১৫% হলেন হিসপ্যানিক। অর্থাৎ অভিবাসীরা হলেন সংখ্যাগরিষ্ঠ এবং অশ্বেতাঙ্গরাই হচ্ছেন ড. নীনার ভোট ব্যাংক। দীর্ঘ ৩০ বছর যাবত এ এলাকার অভিবাসীদের অধিকার ও মর্যাদা নিয়ে কাজ করছেন ড. নীনা। তাকে ফিলাডেলফিয়া সিটি মেয়রের ইমিগ্রেশন কমিশনার এবং সর্বশেষ ডেপুটি মেয়র হিসেবেও অধিষ্ঠিত করা হয়েছিল। এরই মধ্যে প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার উপদেষ্টার দায়িত্বও পালন করেছেন দীর্ঘ কয়েক বছর। সেই মেয়াদ ফুরোনোর আগেই ডোনাল্ড ট্রাম্প প্রেসিডেন্ট হিসেবে শপথ গ্রহণের দিনই তিনি পদত্যাগ করেন। এসব কারণে ফিলাডেলফিয়ায় ব্যাপক জনপ্রিয় ড. নীনাকে ডেমক্র্যাটিক পার্টির নীতি-নির্ধারকরাই প্রার্থী হবার গ্রিন সিগন্যাল দিয়েছেন বলে জানা গেছে।

গত শনিবার সন্ধ্যায় নিউজার্সী রাজ্যের প্রিন্সটনের বাংলাদেশিরা ড. নীনা আহমেদের নির্বাচনী তহবিল গঠনের অনুষ্ঠান করেন। এটি পরিচালনা করেন বিশিষ্ট ব্যবসায়ী মিয়া হেলালি এবং শামসুন হেলালি। সঞ্চালনায় ছিলেন নিউজাসীর্র প্লেইন্স বরো থেকে দুই দুইবার নির্বাচিত কাউন্সিলম্যান ও বিজ্ঞানী ড. নুরুন্নবী। 

অনুষ্ঠানে ড. নীনা তার শুভেচ্ছা বক্তব্যে সবার প্রতি ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করেন। তিনি বলেন, আসছে মে মাসে প্রাইমারি নির্বাচনে জয়ী হবার জন্য আপনাদের সকলের দোয়া এবং সহযোগিতা চাই। 

এই আসনের বর্তমান কংগ্রেসম্যান রবার্ট ব্র্যার্ড দীর্ঘ উনিশ বছর যাবৎ আছেন। তার এই উনিশ বছরে ফিলাডেলফিয়ায় সেই রকম উন্নয়নের কোন ছোঁয়া লাগেনি। এর মধ্যে আবার বর্তমানে তার বিরুদ্ধে বিভিন্ন দুর্নীতির মামলা চলছে। সব মামলার তদন্ত হচ্ছে-এ অবস্থায় আমি সেই আসনটি ধরে রাখতে চাই-বলেন ড. নীনা।

/এনএস