• বুধবার, ২০ জুন ২০১৮, ৬ আষাঢ় ১৪২৫
  • ||
শিরোনাম

‘একরামকে মাদক সম্রাট বানিয়েছিলো আমাদের মিডিয়া’

প্রকাশ:  ০২ জুন ২০১৮, ১৪:০৮ | আপডেট : ০২ জুন ২০১৮, ১৪:৩৯
পূর্বপশ্চিম ডেস্ক
প্রিন্ট
টেকনাফে পৌর কাউন্সিলর একরামুল হক হত্যা মুহূর্তের এক অডিও ক্লিপ নিয়ে তোলপাড় চলছে গোটা দেশে। চলছে ব্যাপক আলোচনা-সমালোচনা। এ বিষয়ে মন্তব্য করেছে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী, সেতুমন্ত্রীসহ র‌্যাবের উর্ধ্বতন কর্মকর্তারাও।

এবার সেই অডিও ক্লিপ প্রসঙ্গে মুখ খুললেন প্রধানমন্ত্রীর উপপ্রেস সচিব হিসেবে আশরাফুল আলম খোকন। শনিবার (২ জুন) দুপুরে নিজের ফেসবুক আইডিতে এক স্ট্যাটাসে তিনি লিখেছেন,

‘বাবা-কন্যার অডিও আমাকে সারারাত ঘুমাতে দেয়নি। কাঠগড়ায় র‌্যাব, সত্য মিথ্যা যাচাই হয়তো পরে হবে। শারীরিকভাবে একরাম নাই হয়ে গেছে সপ্তাহখানেক। অভিযোগ ছিল মাদক ব্যবসার।

কিন্তু এই একরামকে সামাজিকভাবে নাই করা হয়েছে আরও পাঁচ বছর আগে। তাকে মাদক সম্রাট বানিয়েছিলো আমাদের মিডিয়া। দিনের পর দিন রিপোর্ট বানানো হয়েছে একরামকে নিয়ে। সামাজিকভাবে তাকে মারা হয়েছে অনেক আগেই। একরামের অপরাধ ছিল একটাই, সে টেকনাফ উপজেলা যুবলীগের সভাপতি ছিল।

এই প্রক্রিয়া এখনো চলছে। শুধু রাজনৈতিক কারণে অনেককে বানানো হচ্ছে মাদক সম্রাট, তথ্য প্রমাণ ছাড়া সামাজিকভাবে মেরে ফেলা হচ্ছে অনেককেই। মিডিয়ার এই অসুস্থ প্রক্রিয়া বন্ধ হোক..... তাহলে আমাদের অনেকের কান্নারও অবসান ঘটবে।’

প্রসঙ্গত, গত শনিবার (২৬ মে) নিহত হয়েছেন টেকনাফ পৌরসভার কাউন্সিলর একরামুল হক (৪৬)। তিনি অন্যতম শীর্ষ ইয়াবা ব্যবসায়ী ছিলেন বলে দাবি করেছে র‌্যাব। তবে তাদের এই দাবি অস্বীকার করেছে নিহতের পরিবার ও এলাকাবাসী।

তাদের দাবি, একরাম কখনোই ইয়াবা ব্যবসায়ী ছিলেন না। বরং ইয়াবা ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে সোচ্চার ছিলেন এই জনপ্রতিনিধি।

বৃহস্পতিবার (৩১ মে) এক সংবাদ সম্মেলনে এই বন্দুকযুদ্ধকে ঠান্ডা মাথার খুন বলে দাবি করে ১৪ মিনিট ২২ সেকেন্ডের একটি অডিও ক্লিপ সরবরাহ করেন নিহত একরামুল হকের স্ত্রী আয়েশা বেগম। অডিও ক্লিপটি সঙ্গে সঙ্গে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়ে যায়।

-একে